বাগেরহাটে ডেইলি ষ্টারের সম্পাদকের বিরুদ্ধে ১০ হাজার কোটি টাকার মানহানির মামলা

0
410

মাসুম হাওলাদার, বাগেরহাট :
ইংরেজী দৈনিক ডেইরী ষ্টারের সম্পাদক মাহফুজ আনামের বিরুদ্ধে এবার বাগেরহাটে ১০ হাজার কোটি টাকার মানহানিসহ রাষ্ট্রদ্রোহ মামলা দায়ের করা হয়েছে। মঙ্গলবার দুপুরে বাগেরহাটের সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট মোঃ জাহিদুল আজাদের আদালতে আলোচিত এই মামলাটি দায়ের করেন জেলা ছাত্রলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মোঃ মনির হোসেন। মামলায় বাগেরহাট জেলা ছাত্রলীগের সাধারন সম্পাদক নাহিয়ান আল সুলতান ওশানসহ ছাত্রলীগের ৮ নেতা কর্মীকে স্বাক্ষী করা হয়েছে। এদিকে, মামলা দায়েরের পরপরই জেলা ছাত্রলীগ মাহফুজ আনামের গ্রেপ্তার ও বিচার দাবীতে একটি মিছিল করে। আদালতে দায়েরকৃত মামলার অভিযোগ মাহফুজ আনাম বিগত ২০০৭ সালের ২ জুন তারিখে তার সম্পাদিত ডেইরী ষ্টার পত্রিকায় প্রকাশ করেন- দলের ভিতরে এবং বাইরে শেখ হাসিনার পদত্যাগের চাপ বাড়ছে। সরকার তার মিগ ২৯ কেলেংকারী এবং পল্টন হত্যা নিয়ে তদন্ত করছে। আর এদিকে দলের অনেক সিনিয়র ও মাঝারি পর্যায়ের নেতা আওয়ামী লীগ থেকে শেখ হাসিনার পদত্যাগও চাচ্ছেন। সংস্কারপন্থীরা শেখ হাসিনার বিকল্প নিয়েও আলোচনা শুরু করেছেন। অনুরূপ ভাবে ২০০৭ সারের ৩ জুন, ১৩ জুন, ১৪ জুন, ও ২২ জুন আওয়ামী লীগ সভানেত্রী শেখ হাসিনা, আওয়ামী লীগ ও তার অংগ সংগঠনের ভাবমুর্তি ক্ষুন্ন করে জনসমর্থন নষ্ট করার হীন মানসিকতা ও আওয়ামী লীগের আর্ন্তজাতিক- আন্ত রাষ্ট্রীয় সম্পর্ক নষ্ট করতে বিভিন্ন রকম ভিত্তিহীন সংবাদ পরিবেশন করেন। যার কারনে আওয়ামী লীগ সভানেত্রী বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে কারাভোগ পযর্ন্ত করতে হয়েছে। এই ভিত্তিহীন সংবাদ পরিবেশনের কারনে আওয়ামী লীগ সভানেত্রী বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, আওয়ামী লীগ ও তার অংগ সংগঠনসহ বাদী এবং স্বাক্ষীদের মর্যাদাহানিসহ ভাবমুর্তি ক্ষুন্ন হয়েছে। গত ২ ফেব্র“য়ারী বেসরকারী টেলিভিশনের টকশো’তে মাহফুজ আনাম ওই সময়ে এ সক্রান্ত প্রকাশিত সংবাদ সমুহ বিরাট ভূল বলে নিজেই স্বীকার করে নেয়। সম্পাদক মাহফুজ আনাম নিজে স্বীকার করে নেয়াসহ তার সম্পাদিত পত্রিকায় লেখার কারনে বাংলাদেশের রাজনীতিতে সামরিক বাহিনীর হস্তক্ষেপের পথ সুগম করে তাদের ক্ষমতা গ্রহন দীর্ঘায়িত হওয়ায় রাষ্ট্রদ্রোহ ও ১০ হাজার কোটি টাকার মানহানির ক্ষতির অভিযোগে দন্ডবিধির ৫০০/৫০১/৫০২/৫০৫ ধারায় মামলাটি দায়ের করা হয়েছে। #

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here