বরিশালের গ্রামগঞ্জে বইছে নির্বাচনী হাওয়া

0
267

কল্যাণ কুমার চন্দ, বিশেষ প্রদিবেদক :
প্রথম দফার ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনকে সামনে রেখে জেলার দশটি উপজেলার ৭৩টি ইউনিয়ন পরিষদের প্রত্যন্ত গ্রামাঞ্চলে বইছে নৌকা ও ধানের শীর্ষের হাওয়া। প্রার্থীরা দলীয় মনোয়ন পাওয়ার পর থেকে উঠান বৈঠক, গণসংযোগ, দোয়া-মিলাদ, মসজিদ, মাদ্রাসা ও মন্দিরে গিয়ে ভোটারদের দিচ্ছেন উন্নয়নের নানা প্রতিশ্রুতি। নির্বাচনে যারা নতুন মুখ হিসেবে মনোয়ন পেয়েছেন তারা ভোটারদের দ্বারে দ্বারে গিয়ে ভোট প্রার্থণাসহ বর্তমান চেয়ারম্যানদের বিগত পাঁচবছরের নানা অনিয়ম, দুর্নীতি ও অতীত চরিত্রের চিত্র তুলে ধরছেন। এছাড়া বর্তমান অধিকাংশ চেয়ারম্যান উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে নিজ নিজ প্রতীকের পক্ষে গণসংযোগ করে যাচ্ছেন। একই অবস্থা বিরাজ করছে সাধারণ ও সংরক্ষিত সদস্য পদের প্রার্থীদের বেলায়।
সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, জেলার দশটি উপজেলার ৭৪টি ইউনিয়নের মধ্যে একটিতে আ’লীগ সমর্থিত চেয়ারম্যান প্রার্থী বিনাপ্রতিদ্বন্ধিতায় নির্বাচিত হয়েছেন। ফলে ৭৩টি ইউনিয়নে ৩৩৭জন প্রার্থী চেয়ারম্যান পদে তুমুল প্রতিদ্বন্ধিতা করছেন। সরেজমিনে দেখা গেছে, প্রতিদিন কাকডাকা ভোর থেকে মধ্যরাত পর্যন্ত বিরামহীনভাবে প্রত্যন্ত অঞ্চলের ভোটারদের বাড়িতে বাড়িতে গিয়ে ভোট প্রার্থনায় চেয়ারম্যান, সাধারণ ও সংরক্ষিত ইউপি সদস্য পদের প্রার্থীদের চলছে গণসংযোগ ও প্রচার প্রচারনা। প্রতিদিনই একাধিক উঠান বৈঠকে মিলিত হচ্ছেন প্রার্থীরা। অভ্যন্তরীণ সকল বিভেদভুলে স্থানীয় এ নির্বাচনে প্রথমবারের মতো দলীয় প্রতীককে আ’লীগ পেস্টিজ ইস্যু মনে করে এক কাঁতারে মিলিত হয়ে দলের মনোনীত প্রার্থীর বিজয় নিশ্চিত করতে কোমড় বেঁধে মাঠে নেমেছেন। সেক্ষেত্রে অনেকটাই পিছিয়ে রয়েছেন বিএনপিসহ অন্যান্য দলের নেতাকর্মীরা। প্রচার প্রচারনায় তারা অনেকটাই পিছিয়ে রয়েছেন। এখনও বিএনপির উপজেলা পর্যায়ের কোন নেতৃবৃন্দকে দলের প্রার্থীর পক্ষে প্রচার প্রচারনায় মাঠে দেখা যায়নি। জেলার গৌরনদীর মাহিলাড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান পদে বিএনপির মনোনয়ন পেয়েছেন যুবদল নেতা সবুজ সিকদার। ওই ইউনিয়নের ত্যাগী ও নির্যাতিত বিএনপির একাধিক নেতাকর্মীরা জানান, এলাকার চিহ্নিত মাদক স¤্রাট সবুজ সিকদার দলের কতিপয় নেতাকে মোটা অংকের টাকার বিনিময়ে ম্যানেজ করে ধানের শীর্ষ প্রতীক বাগিয়ে নিয়েছেন। ফলে ওই ইউনিয়নে দলীয় প্রার্থীর পক্ষে এখনও কোন কর্মসূচী পালিত হয়নি। সূত্রমতে, বিএনপির অভ্যন্তরীণ কোন্দলের কারণে ক্রমেই জেলার সর্বত্র নৌকার জোয়ার বইতে শুরু করেছে।
জেলা নির্বাচন অফিস সূত্রে জানা গেছে, বরিশাল সদর উপজেলার দশটি, মেহেন্দিগঞ্জের আটটি, উজিরপুরের সাতটি, বাকেরগঞ্জের ১৩টি, মুলাদীর ছয়টি, হিজলার চারটি, আগৈলঝাড়ার পাঁচটি, বানারীপাড়ার সাতটি, বাবুগঞ্জের ছয়টি ও গৌরনদী উপজেলার সাতটি ইউনিয়ন পরিষদে আগামি ২২ মার্চ প্রথম দফার নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। ৭৩টি ইউনিয়ন বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের মনোনীত ৩৩৭জন চেয়ারম্যান প্রার্থী প্রতিদ্বন্ধিতা করছেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here